শিরোনাম
পাবনায় পানিতে লাফ দিতেই হারিয়ে গেল দুই শিশু ৪ টির দু,‘টি ফেরীই নষ্ট,কাজিরহাট ঘাটে দীর্ঘ যানজট করোনায় পাবনা জেলা শ্রমিক দল সভাপতির মৃত্যু ময়মনসিংহে ডিপিএড ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীদের বকেয়া প্রশিক্ষণের ভাতার দাবিতে মানববন্ধন পাবনায় পাঁছ লক্ষাধিক টাকার ইয়াবাসহ ব্যবসায়ী আটক আষাঢ়ের শুরুতেই পাবনায় ভারী বর্ষণের রেকর্ড! পাবনায় অস্ত্রের মহড়া: আ.লীগ নেতাদের অস্ত্রের লাইসেন্স বাতিল ঈশ্বরদী-রূপপুরের উন্নয়ন কাজ পরিদর্শনে অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী পাবনার আ.লীগ নেতাদের অস্ত্রের মহড়া : অস্ত্রের লাইসেন্স বাতিলের সুপারিশ পুলিশের পাবিপ্রবিতে এক বছর পূর্বের তারিখে ফরম পুরনের বিজ্ঞপ্তি
বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ০৫:৫৭ অপরাহ্ন

ইছামতি নদী যথাযথভাবে খননের দাবিতে ডিসি অফিস ঘেরাও এবং স্মারকলিপি প্রদান

অনলাইন ডেস্ক / ৩৩ শেয়ার
প্রকাশ : বুধবার, ২ জুন, ২০২১

স্টাফ রিপোর্টারঃ

মহামান্য হাইকোটের্র আদেশ মোতাবেক সিএস ম্যাপ অনুযায়ী পাবনার ঐতিহ্যবাহী ইছামতি নদী ” পুনরুজ্জীবিত করা এবং যথাসময়ে ওয়ার্ক অর্ডার অনুযায়ী উচ্ছেদ ও খনন কাজ শেষ করার দাবীতে গতকাল সোমবার ৩১ মে বেলা ১১ টা থেকে ১২ টা পর্যন্ত পাবনা ডিসি অফিস ঘেরাও কর্মসূচী পালন এবং জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারকলিপি প্রদান করা হয়। ইছামতি নদী উদ্ধার আন্দোলন পাবনা এবং বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) পাবনা জেলা শাখার উদ্যোগে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন ( বাপা) পাবনা জেলা শাখার সহ-সভাপতি জেলা পৌর আওয়ামী‘লীগের সভাপতি এডঃ তোসলিম হাসান সুমন এর সভাপতিত্বে এবং ইছামতি নদী উদ্ধার আন্দোলন পাবনার সভাপতি এস এম মাহবুব আলমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত ঘেরাও কর্মসূচীতে বক্তব্য দেন জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম আজাদ, জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা সদস্য বীরমুক্তিযোদ্ধা আসম আব্দুর রহিম পাকন, বাপা জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক বিশিষ্ট কলামিস্ট সাংবাদিক আব্দুল হামিদ খান, ইছামতি নদী উদ্ধার আন্দোলন পাবনার সাধারণ সম্পাদক জেলা কৃষকলীগের সহ-সভাপতি আলহাজ্ব হাবিবুর রহমান হাবিব, জেলা আওয়ামী সাংষ্কৃতিক ফোরামের সভাপতি সামছুল হুদা ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ এনামুল হক চৌধুরী টগর, স্বাধিনতা শিক্ষক পরিষদ পাবনা জেলা শাখার সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির সদস্য সচিব সিটি কলেজের অধ্যক্ষ সুজন মাহমুদ, স্বাধিনতা শিক্ষক পরিষদের সদর উপজেলা শাখার সভাপতি সামছুল হুদা ডিগ্রী কলেজের উপাধ্যক্ষ নজরুল ইসলাম খান বাবু, পাবনা কামিল মাদরাসার উপাধ্যক্ষ আশরাফুল ইসলাম,শহীদ সাধন সঙ্গীত মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ মনিরা পারভিন, এফবিসিসিআই কো-চেয়ারম্যান হাজী ফারুক ,সেলিম নাজির উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হাসিনা আক্তার রোজী, দেবোত্তর ডিগ্রী কলেজের সহকারী অধ্যাপক নিহার আফরোজ জলি, ওয়াইডাবিøউসিএ জেনারেল সেক্রেটারী হেনা গোস্বামী, ইছামতি নদী উদ্ধার আন্দোলন সাংগঠনিক সম্পাদক ড. মনছুর আলম,সদস্য বাঁচতে চাই নির্বাহী পরিচালক আব্দুর রব মন্টু, জাতীয় সমাজ তান্ত্রিক দলের ভাইস চেয়ারম্যান মোজ্জাম্মেল হক কবীর, , সদর উপজেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান মাজাহারুল ইসলাম মুন্নু, পৌর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মেহেদী হাসান এপ্রিল, আব্দুস সালাম প্রমুখ। বক্তারা বলেন পাবনার ঐতিহ্যবাহী ইছামতি নদী খনন এবং নদীপাড়েরর অবৈধ উচ্ছেদ কার্যক্রম যথাযথভাবে সম্পন্ন করতে হবে। তা না হলে আগামীতে কাজের সাথে সংশ্লিষ্ট কাউকে ছাড় দেওয়া হবেনা। ঘেরাও কর্মসূচীতে বীরমুক্তিযোদ্ধ আলী জব্বার, বীরমুক্তিযোদ্ধা হরি শঙ্কর রায়, নাটোর ভিটিআই অধ্যক্ষ আবুল কালাম আজাদ, পদ্মাকলেজের সহকারী অধ্যাপক ওসমান গণি ও আলাউদ্দীন, সামসুল হুদা ডিগ্রী কলেজের সহকারী অধ্যাপক তারিকুল ইসলাম, ইমাম আলী হাসান, সেন্ট্রাল গালর্স স্কুলের প্রধান শিক্ষক তালেবুর রহমান, পাবনা রিপোটার্স ইউনিটির সাধারণ সম্পাদক কাজী মাহবুব মোর্শেদ বাবলা, কৃষিবিদ জাফর সাদেক,সহকারী অধ্যাপক আসাদুজ্জামান খোকন, পাবনা ইসলামিয়া ডিগ্রী কলেজের সহকারী অধ্যাপক মোঃ আব্দুল্লাহ, সহকারী প্রধান শিক্ষক ইয়াকুব আলী, পাবনা মিডিয়ার চেয়ারম্যান মীর ফজলুল করিম বাচ্চু, পাঠশালার সাধারণ সম্পাদক শিশির ইসলাম,সূচীতার নির্বাহী পরিচালক নাসরিন পারভীন, উদ্দিপনার নিবার্হী পরিচালক আলেয়া ইয়াসমিন, ফায়ার সার্ভিস পাবনার রবিউল করিম, কবি মোহসীন আলী, কবি মধুসুদন মজুমদার,খন্দকার শরিফুল ইসলাম, শফিউদ্দিন মিয়া, পাবনা মেন্টাল ক্লিনিকের এমডি মিজানুর রহমান শরীফ, ইছামতি থিয়েটারের পরিচালক ভাস্কর চৌধুরী,মনিরুজ্জামান ডেবিড প্রমুখ সহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ অংশ নেন।

উল্লেখ্য বাংলাবাজার ব্রিজ থেকে লাইব্রেরীবাজার হয়ে শ্মশানঘাট পর্যন্ত ৭.৭৬ কিঃমিঃ ইছামতি নদীর ২মিঃ অথার্ৎ প্রায় ৭ ফুট খনন কাজের জন্য ইতিমধ্যে ৫ কোটি ৪৭ লক্ষ টাকার টেন্ডার হয়েছে। উক্ত কাজটি পেয়েছেন ঢাকার জনৈক ঠিকাদার আব্দুর রাজ্জাক। গত ৩০ মার্চ কাজটি উদ্বোধন করেন পাবনা সদর আসনের সংসদ সদস্য গোলাম ফারুক প্রিন্স। লাইব্রেরী বাজার থেকে শ্মশানঘাট পর্যন্ত ৫ কিঃমি নদী খননের কাজ শুরু হবে দেশের লকডাউন শেষ হলে, প্রথমে নদীর দুপাড়ে উচ্ছেদ অভিযান পরে খনন কাজ। বাকী ২.৭৬ কিঃমিঃ অর্থাৎ বাংলাবাজার ব্রিজ থেকে লাইব্রেরীবাজার পর্যন্ত খনন কাজ চলছে। প্রায় দু‘মাসে মাত্র ২০ থেকে ২৫ % কাজ করা হয়েছে। জুন – জুলাই বর্ষামৌসুমে কাজ করা অসম্ভব। বাকী কাজ আগামী ৩১ ডিসেম্বর /২০২১ এর মধ্যে কী ভাবে সম্ভব। এ ভাবে কাজ চলতে থাকলে খনন কাজের টাকা ফেরৎ দিতে হবে বলে জানান বাপাউবো পাবনার জনৈক কর্মকর্তা। এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের স্বাক্ষাত তো দূরের কথা মোবাইলেও পাওয়া যাচ্ছোনা।
জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদ স্মারকলিপি গ্রহণ শেষে বলেন, মহামান্য হাইকোর্টের উর্দ্ধে আমরা কেউ নই। হাইকোর্টের আদেশ অনুযায়ী সিএস ম্যাপ অনুযায়ী পাবনার ঐতিহ্যবাহী ইছামতি নদীর দু‘পাড়েরর অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ এবং খনন কাজ করা হবে। খননকাজে কোর রকম অনিয়ম বরদাস্ত করা হবে না। খনন কাজ তদারকির জন্য আমরা আলাদা কমিটি করে দিব।


এই বিভাগের আরও খবর
ব্রেকিং নিউজ
x
ব্রেকিং নিউজ
x